বঙ্গে বর্ষার আগমন! ধেয়ে আসছে তুমুল বৃষ্টি, কলকাতা সহ ভাসবে রাজ্যের এই সকল জেলা, জানাল আবহাওয়া দপ্তর

বেশ কিছুদিন ধরে বাংলা জুড়ে বৃষ্টি শুরু হয়েছে। তবে আবহাওয়া দপ্তরের পক্ষ থেকে সামরিক শক্তির পূর্বাভাস দেওয়া হয়েছিল। সপ্তাহের প্রথম দিন সোমবারের বৃষ্টির তাণ্ডব কিছুটা কম হলেও সম্পূর্ণ নিস্তার মেলেনি।

মঙ্গলবার থেকে আবারও শুরু হবে বৃষ্টির মরশুম। ইতিমধ্যে প্রচুর বৃষ্টি হয়ে গিয়েছে। আবারো বৃষ্টি হবে বলে জানিয়েছে আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর।

রাজ্যজুড়ে সপ্তাহের প্রথম দিন সোমবারে মেঘলা আকাশ। যদিও কোথাও কোথাও একটু আধটু রোদ দেখা দিয়েছে। উত্তরবঙ্গে ভারী বৃষ্টি জারি রয়েছে।

মঙ্গলবার থেকে আবারও বৃষ্টির মরশুম শুরু হতে চলেছে দক্ষিণবঙ্গে। গত ২৪ ঘণ্টায় ১৩.৮ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে। চলতি সপ্তাহে বাড়বে বৃষ্টির পরিমাণ।

আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে খবর, সোমবার হালকা থেকে মাঝারি দু-এক পশলা বৃষ্টি হতে পারে কলকাতায়। দক্ষিণবঙ্গে আজ বজ্রবিদ্যুৎ-সহ বিক্ষিপ্ত বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

অন্যদিকে উত্তরবঙ্গে জলপাইগুড়ি, আলিপুরদুয়ার এবং কোচবিহারে চলবে ভারী বৃষ্টি। রবিবার সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল স্বাভাবিকের থেকে কয়েক ডিগ্রী কম অর্থাৎ, ৩০.৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

এদিন সর্বনিম্ন তাপমাত্রা, ২৪.৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। বাতাসের সর্বোচ্চ জলীয়বাষ্পের পরিমাণ ৯৭ শতাংশ। নিম্নচাপ অক্ষরেখা রাজস্থান থেকে বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত বিস্তৃত।

ঝাড়খণ্ড ও গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের উপর দিয়ে গিয়েছে এই অক্ষরেখা। মৌসুমী বায়ু অতি সক্রিয় হওয়ার কারণে সপ্তাহ জুড়ে দক্ষিণবঙ্গের বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া দপ্তর।

পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, পশ্চিম বর্ধমান, বীরভূম, মুর্শিদাবাদ এবং নদিয়ায় মঙ্গলবার ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা, পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুরে বুধবার বজ্রবিদ্যুৎ সহ বৃষ্টিপাত হতে পারে।

সেই দিক থেকে কলকাতায় হালকা বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। দুই ২৪ পরগনা এবং দুই মেদিনীপুরে বৃহস্পতিবার বজ্রবিদ্যুৎ-সহ বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা।

বাদ যাবেনা উত্তরবঙ্গের দার্জিলিং, কালিম্পং, আলিপুরদুয়ার। এদিকে প্রচুর বৃষ্টি না হলেও ডিভিসি থেকে জল ছাড়ার কারণে বাঁকুড়া, পশ্চিম মেদিনীপুরের বেশ কিছু এলাকা প্লাবিত হচ্ছে।