ঈশ্বর প্রদত্ত কন্ঠ! বিড়ি বাঁধতে বাঁধতে মিষ্টি সুরে দুর্দান্ত গান গাইল গ্রামের গৃহবধূ, ভাইরাল ভিডিও

সোশ্যাল মিডিয়ার চুলে প্রতিদিন প্রতিনিয়ত কত কিছুইনা ভাইরাল হতে দেখছি আমরা। অনেকেই থাকেন যারা নিজেদের ফেসবুক প্রোফাইল থেকে বেশকিছু প্রতিভাধর মানুষের ভিডিও এবং ছবি পোস্ট করে থাকেন। সেগুলি মুহূর্তের মধ্যে ভাইরাল হয়ে যায় সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে।

এমনই একজন মানুষ হলেন অতীন্দ্র চক্রবর্তী।  তিনি তার সোশ্যাল মিডিয়া প্রোফাইল ব্যবহার করেন দেশজুড়ে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা প্রতিভাকে প্রকাশ করার জন্য। এবার অতীন্দ্র চক্রবর্তীর হাত ধরে উঠে এসেছে এমন এক প্রতিভাধর মহিলা যার গান শুনলে রীতিমত মুগ্ধ হয়ে গিয়েছে নেট পাড়া।

গ্রামের এক অতি সাধারণ গৃহবধূ তিনি। অতি সাধারণ হয়েও অসাধারন গান গেয়ে কার্যত সকলকে চমকে দিলেন এই গৃহবধূ।  তাঁর নাম শিউলি মিদ্দা। বিড়ি বানতে মধ্যে “মেরে রাসকে কামার” গানটি গাইলেন তিনি। পূর্ব বর্ধমান জেলার গোলাসর গ্রামের গৃহবধূ শিউলি মিদ্দা।

তার গান এখন চারিদিকে ছড়িয়ে পড়েছে ঝড়ের গতিতে। ইতিপূর্বে অতীন্দ্র চক্রবর্তীর হাত ধরে রানাঘাটের রানু মন্ডল এবং চাকদহের বিপাশা দাস ভাইরাল হয়েছিলেন সোশ্যাল মিডিয়াতে। তাদের গানের গলা সকলের মন জয় করে নিয়েছিল সেই সময়।

এবার ভাইরাল হলেন পূর্ব বর্ধমানের এই গৃহবধূ। যেসব মানুষেরা প্রচারের আলো পায় না তাদের প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে তুলে আনেন অতীন্দ্র চক্রবর্তী। এখন সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে ট্রেন্ডিং ভিডিও হয়ে গিয়েছে এই বিড়ি বাঁধতে বাঁধতে গান গাওয়া গৃহবধূর ভিডিও।

ইতিমধ্যেই অতীন্দ্র চক্রবর্তীর পোস্ট করা গৃহবধূর গানের ভিডিওটি দেখে নিয়েছেন লাখো লাখো দর্শক। সকলেই এই গৃহবধূর গানের প্রশংসায় পঞ্চমুখ। কোন প্রকার তালিম না নিয়ে যে এত সুন্দর গান গাওয়া যায় তার প্রমাণ করে দিয়েছেন গৃহবধূ।

সেই কারণেই লক্ষ লক্ষ দর্শকের নজর কেড়েছেন তিনি। কমেন্ট সেকশনে সকলেই এই গৃহবধূ যাতে পরবর্তী ক্ষেত্রে নিজের পরিচয় গড়ে তুলতে পারেন সেই কামনা করেছেন।