রেল লাইনের উপর বসে ছিল যুবক, হঠাৎ স্পিডে ট্রেন আসায় ঘটলো চরম বিপত্তি, ঝড়ের গতিতে ভাইরাল ভিডিও

সোশ্যাল মিডিয়ার দরুন প্রতিদিনই নানারকম ভিডিও ভাইরাল হয়। সারা পৃথিবীর খবর আমরা সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে পেয়ে থাকি।

তাই মাঝে মাঝে এমন কিছু কিছু খবর ঘটনা আমাদের সামনে আসে তা দেখে সত্যিই আমরা শিহ’রিত হয়ে উঠি।

ট্রেন দু’র্ঘ’টনা আমাদের ভারতবর্ষের তথা সারা বিশ্বে একটি বড় সম’স্যা। প্রায় প্রতিদিনই ট্রেনের দুর্ঘ’ট’নায় অনেক মানুষ মারা যায়।

সম্প্রতি কিছুদিন আগেই ভাইরাল হয়েছিল এক বৃদ্ধা রেললাইন পার হচ্ছিলেন, কিন্তু অপর দিকে ট্রেন আসছে তিনি তা খেয়াল করেনি,

এক যুবকের চোখে পড়ায় সে যাত্রায় তিনি প্রা’ণে বেঁ’চে যান। এছাড়াও বেশ কিছু বছর আগে ভাইরাল হয়েছিলেন এক ভদ্রমহিলা,

যিনি ট্রেনের লাইনের মাঝামাঝি ফেঁ’সে গেছিলেন, তাই ট্রেন তার উপর দিয়ে চলে গেলেও মাঝামাঝি থাকায় তিনি কোনমতে র’ক্ষা পেয়ে যান।

কিন্তু সবাই এত ভা’গ্যবান হয় না, ভারতবর্ষে প্রতিদিন প্রায় একশর বেশি মানুষ মারা যান ট্রে’ন দুর্ঘ’ট’নায়, বেশিরভাগ সময়ে অমনোযোগী তাই এর কারন হয়।

ট্রেনের মধ্যে প্রায় দু’র্ঘট’না গুলি বেশিরভাগ সময় মানুষের অমনোযোগিতার কারণেই হয়। কখনো দেখা যায় কিশোর-কিশোরীরা কানে হেড’ফোন গুঁ’জে রেললাইন পারাপার করছে,

কখনো আবার চলন্ত ট্রে’নের দরজা ধরে ঝুলে কেরা’মতি দেখাচ্ছেন, এইসব জিনিসগুলোর জন্য এত ট্রেন দু’র্ঘ’টনা ঘটে থাকে আমাদের ভারতবর্ষে।

আমাদের উচিত সব সময় সচেতন থাকা। এর আগে ভাইরাল একটি ভিডিওতে দেখা যাচ্ছিল, এক স্থানে রেল লাইনের উপর একটি ট্রা’ক্টর আড়াআড়ি ভাবে দাঁড়িয়ে আছে।

ট্রাক্টর থাকার জন্য ট্রেনটি দূরে দাঁড়িয়ে আছে, চারপাশের মানুষজন রেল লাইন ক্র’স করে চলে যাচ্ছে। কিন্তু ট্রাক্ট’রটি ঘণ্টার পর ঘ’ণ্টা দাঁড়িয়ে থাকার জন্য

ট্রেনটি কিছুতেই লাইন ক্রস করতে পারছ না। এই মুহূর্তে যদি ট্রেনটির কো’নক্রমে চলতে আরম্ভ করতে হলে বিশাল বড় দু’র্ঘট’না ঘটতে পারত,

কিন্তু শেষ পর্যন্ত জনগণের সম্মিলিত প্র’তি’বাদে ট্রাক্টরটি সরে যেতে বাধ্য হয় এবং ট্রেনটি সু’ষ্ঠু’ভাবে লাইন ক্রস করে চলে যায়।

সম্প্রতি শামীম নামের এক ব্যক্তির ফেসবুক প্রোফাইল থেকে ভাইরাল হওয়া একটি ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, একটি লোক ট্রেন লাইনের উপর বসে আছেন।

হঠাৎই দেখা যায় তার অন্য দিক থেকে ছুটে আসছে একটি ট্রেন, তার পালানোর কোন জায়গা ছিল না। এই সময়ে সে এক অ’দ্ভুত কাণ্ড করে বসে।

সে সটান ট্রেনের সামনে গিয়ে দাঁড়িয়ে যায়। ট্রেনটি তার গায়ের কাছে আসা মাত্রই সে নিজে জলে ঝাঁ’প দেয়। আর কিছু সময় দেরী হলেই ট্রে’নটি তাকে ছিন্নভিন্ন করে দিত।

ঘটনার আক’স্মিক’তায় শিহ’রিত করে তুলেছে দর্শক দের। ভিডিওটি চারিদিকে হয়ে গেছে ভাইরাল। হাজার হাজার মানুষ ভিডিওটি লা’ইক করেছে।

লোকটির কঠোর নি’ন্দা করেছেন সবাই।  কমেন্ট বক্সে সবাই এই মানুষটির শা’স্তি’র জন্য সরকা’রের কাছে অনু’রোধ জানিয়েছেন।

এসব মানুষদের বারবার ছেড়ে দেয়া হয় বলেই ট্রেন দু’র্ঘট’নার সংখ্যা আমাদের দেশে এত বেশি। এদের বিরু’দ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া উচিত।

ভারতবর্ষে প্রায় প্রতিদিনই ট্রেন দু’র্ঘটনা হাজার হাজার মানুষ মা-‘রা যান। এর মধ্যে বেশির ভাগই মানুষের অন্যম’নস্কতার ফলে ঘটে থাকে।

এর আগেও ভাইরাল হওয়া একটি ভিডিওতে দেখা গেছিল, চলন্ত ট্রেন থেকে অসাবধানতাবশত নামতে গিয়ে এক মহিলার পা আটকে গেছিল ট্রেনের কামরায়, পরে জনগণ তাকে বাঁ’চি’য়ে দেন।

এই সমস্ত অন্য মানুষকে তার বিরু’দ্ধে এই মুহূর্তেই পুলি’শি ব্যবস্থা নেওয়া উচিত, মানুষদের যোগ্য শা’স্তি’র ব্যব’স্থা করা উচিত। ব্যবস্থা নিলে তবেই দুর্ঘ’টনার সংখ্যা কমবে, মানুষ সচেতন হবে।