ছোট্ট খুদেকে কোলে নিয়ে দুর্দান্ত এক্সপ্রেশনের সঙ্গে নেচে নেটদুনিয়ায় ভাইরাল বাঙালী গৃহবধূ, ভাইরাল ভিডিও

সোশ্যাল মিডিয়ার এই যুগকে অনেকে “ভাইরাল” যুগ বলে সম্বোধন করে। এই যুগে ভাইরাল হয়ে অনেকেই রাতারাতি তারকা বনে গেছেন। আবার কুকীর্তি ফাঁস হয়ে বিখ্যাত অনেকেই খলনায়কে পরিণত হয়েছেন।

কারণ সোশ্যাল মিডিয়ায় কোনো বিষয় ভাইরাল হলে এটি সমাজের একটি বড় অংশকে প্রভাবিত করতে সক্ষম হয়। হঠাৎ সমাজে দ্রুত ছড়িয়ে পড়া কোনো বিষয় বা ইস্যুকেই “ভাইরাল” বলে উল্লেখ করা হয়।

আজকাল সোশ্যাল মিডিয়ায় কোন কিছু পোস্ট করলে তা মুহূর্তের মধ্যে সকলের কাছে পৌঁছে যায় কোনো রকম বাধা বিপত্তি ছাড়াই। মানুষ যে বিষয় যত বেশি ভালোবাসে, সেটি সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ারও করে ততটাই। কেউ গান পছন্দ করেন কেউ আবার নাচ।

কেউ কেউ আবার হাসির ভিডিও খুবই পছন্দ করে থাকেন। এ ছাড়া কোনো ঘটনা ঘটে যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই অনলাইন বা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পোস্ট আপলোড করা হলে ভাইরাল হওয়ার সম্ভাবনা বেড়ে যায়।

অনেকে শুধু পপুলার হওয়া বা খ্যাতি পাওয়ার জন্য নিজেই নিজের ভাইরাল ভিডিও সৃষ্টি করেছে। জনপ্রিয়তা অর্জন করতে কে না চায়? কিন্তু চাইলেও সবাই জনপ্রিয়তা অর্জন করতে পারে না।

নিজের অসাধারণ কিছু ক্রিয়া-কলাপ দেখাতে পারলে আজকাল সোশ্যাল মিডিয়ায় তার ভালোই চাহিদা রয়েছে। একসময় টিকটক নামক অ্যাপ্লিকেশনটি জনপ্রিয়তা ছিল তুঙ্গে। কারণ এই অ্যাপ্লিকেশনটিতে বিভিন্ন রকম ফিল্টার দিয়ে ভিডিও বানানো যেত।

কিন্তু বর্তমানে এই অ্যাপ্লিকেশনটি বন্ধ করে দেওয়ার কারণে অনেকেই এখন বেশি ঝুঁকেছেন ইনস্টাগ্রাম রিল ইউটিউব চ্যানেল ফেসবুক পেজের দিকে। এবার সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল বলেন এক মা। সন্তানকে কোলে নিয়ে মায়ের আদর করার ভিডিও ইতিমধ্যেই জনপ্রিয়তা অর্জন করে নিয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

মাম্পি যাদব, সোশ্যাল মিডিয়ার খুবই পরিচিত এবং জনপ্রিয় একটি নাম। ইতিপূর্বে সে টিকটক নামক অ্যাপ্লিকেশনটিতে ভিডিও বানাতো। তবে বর্তমানে সে নিজের ইউটিউব চ্যানেল, ফেসবুক পেজ আর ইনস্টাগ্রাম থেকে নিজের বিভিন্ন ধরনের নাচের ভিডিও পোস্ট করে থাকে।

ইতিপূর্বে আমরা তার নাচের জাদু এক্সপ্রেশন দেখে সত্যিই হতবাক হয়েছি।বিয়ের পরেও সংসার ধর্ম পালন করার পাশাপাশি নিজের প্যাশনের ওপর গুরুত্ব দিয়ে এক মহিলা কি ভাবে এগিয়ে যেতে পারে, তার এক অনন্য নজির তিনি।

এবার মাম্পি মা হয়েছে। তার এখন অনেক কাজ। এখন সোশ্যাল মিডিয়ায় খুব বেশি নিয়মিত ভিডিও না আসলেও, এবার তার একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে ইউটিউবে। ভিডিওটিতে দেখা গিয়েছে, মেয়েকে কোলে নিয়ে আদর করছে মাম্পি।

পরনে তার হলুদ রঙের ডিজাইনার শাড়ি। একইসঙ্গে গলায়, মাথায় হাতে ফুলের তৈরি গহনা। মায়ের সাথে ম্যাচ করে ছোট্ট শিশুটিও হলুদ রঙের একটি জামা পরেছে ভিডিওটি করার সময় সে অবশ্য ঘুমন্ত অবস্থায় ছিল। সম্ভবত ছোট্ট শিশুটির অন্নপ্রাশনের ভিডিও এটি।

সারাদিনের অনেক কাজের ব্যস্ততার মাঝেও মা তার সন্তানকে কখনোই ভুলে যান না। সময়মতো খাওয়ানো সাজানো-গোছানো থেকে শুরু করে সন্তানের প্রতি দায়িত্ব নিখুঁত ভাবে পালন করে যান একজন মা।

মায়ের ভালোবাসার কাছে সব ভালোবাসা হার মেনে যায়। কথায় বলে, “কুপূত্র যদিবা হয়, কুমাতা কখনই নয়”। মাম্পি যাদব একসময় নিজের ক্যারিয়ার নিয়ে ব্যস্ত থাকলেও এখন সে নিজের মেয়েকে মানুষ করতে ব্যস্ত রয়েছে।

তারই এক দৃশ্য দেখা গেল “লেটস স্টার্ট” নামক একটি ইউটিউব চ্যানেল থেকে। ইতিমধ্যেই ভিডিওটি ৩৮ হাজার মানুষ লাইক করেছেন।