সল্প পোশাকে দুর্দান্ত বেলি ড্যান্স করে নেটিজেনদের মন জয় করল যুবতী, ভিডিও ভাইরাল

মিউজিকের সঙ্গে বেলি ডান্স দেখিয়ে ফেসবুকে জনপ্রিয়তা অর্জন করে নিলেন এক যুবতী। ইতিমধ্যেই ভাইরাল হয়ে গিয়েছে এই যুবতীর বেলি ডান্সের ভিডিওটি।

খুব কম সময়ে ব্যাপক জনপ্রিয়তা অর্জন করে নিয়েছে এই যুবতী। সোশ্যাল মিডিয়ায় এমনই প্রত্যেক দিন প্রচুর প্রতিভার অধিকারী মানুষদের সঙ্গে আমাদের পরিচয় ঘটে।

এই যুবতী তাদের মধ্যে একজন, তাতে কোন সন্দেহ নেই। সোশ্যাল মিডিয়ার এমন একটি মাধ্যম যা সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে যোগাযোগ করতে বেশ উপযোগী।

ক-‘রো-না পরিস্থিতির সৃষ্টি হবার পর থেকে সোশ্যাল মিডিয়ার জনপ্রিয়তা যেন বেড়েই চলেছে। দেশে যখন লকডাউন চলছিল

সেই সময়ে সোশ্যাল মিডিয়ার জনপ্রিয়তা এক ধাক্কায় অনেকখানি বেড়ে যায়। আর সোশ্যাল মিডিয়ার দৌলতে আমাদের সঙ্গে পরিচয় ঘটে

এক ঝাঁক উঠতি তারকাদের। তাই সোশ্যাল মিডিয়ার ভূমিকা আমাদের জীবনে যে ঠিক কতটা গুরুত্বপূর্ণ, তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না।

নারী বা পুরুষ, আজকাল সকলেই চায় নিজের একটা পরিচয় তৈরি করতে। পরিচয় তৈরি করার দিক থেকে সোশ্যাল মিডিয়ার অবদান অনস্বীকার্য।

ঘরে বসে বিভিন্ন রকম ক্রিয়া-কলাপ দেখিয়ে জনপ্রিয়তা অর্জন করে নেওয়ার জন্য সোশ্যাল মিডিয়ার মতন বড় একটি প্ল্যাটফর্ম আমাদের কাছে আশীর্বাদ স্বরূপ।

কেও নাচ, কেও গান আবার কেও ভালো আঁকতে কিংবা আবৃত্তি করতে পারেন। কিন্তু জনগণের কাছে এত প্রতিভার অধিকারী মানুষের জনপ্রিয়তা তখনই তৈরি হবে,

যখন তাদের মানুষ চিনবে এবং জানবে। যোগাযোগের পরিধি বিস্তারের লক্ষ্যে সোশ্যাল মিডিয়া এক বড় ভূমিকা পালন করে।

আজকাল মেয়েরাও কোন কিছুতে পিছিয়ে নেই। তারা পুরুষের কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে নিজেদের প্রতিষ্ঠিত করতে চায়। ঘর-সংসার পড়াশোনা সবটা সামলে

তারাও চাই নিজের পায়ে দাঁড়াতে। আর তাদের কাছে সোশ্যাল মিডিয়া নামক এই বিশাল প্ল্যাটফর্ম এক অনন্য সুযোগ এনে দিয়েছে।

সেই সুযোগের সদ্ব্যবহার করে চলেছে বহু মানুষ। কেউ ভাল রান্না করতে পারেন, কেউ আবার ঘর গোছানোর টিপস কিংবা

মেকআপ টিপসের দিক থেকে চৌকস। তাই এই সকল মহিলারা ইউটিউব চ্যানেল খুলে কিংবা ফেসবুক পেজ থেকে নিজেদের প্রতিভা

সকলের সামনে তুলে ধরার চেষ্টা করেন। জনগণের কাছে নজরকাড়া একবার হলেই সঙ্গে সঙ্গে তা ভাইরাল হয়ে যায়। সোশ্যাল মিডিয়া থেকে বেশ কিছু ইনকাম হয়।

অনেক মানুষের সংসার চলে সোশ্যাল মিডিয়া থেকে করা উপার্জনের অর্থে। এবার সোশ্যাল মিডিয়ায় বেলি ডান্স দেখিয়ে ভাইরাল হল এক কন্যা।

বয়স আঠেরো থেকে কুড়ি বছর। আগেকার দিনে এই বয়সের মেয়েদের বিয়ে দিয়ে দেওয়া হতো। যুগ পাল্টানোর সাথে সাথে চিন্তাধারা পাল্টে গিয়েছে।

তারই প্রমাণ এই যুবতী। সাদা রঙের ক্রভ টপ আর ডিজাইনার স্কার্ট পড়ে বেশ মানিয়েছে তাঁকে। তার সৌন্দর্য আরো বৃদ্ধি করেছে দুই হাতে চুড়ি।

জনপ্রিয় একটি মিউজিকের তালে তালে বেলি ডান্স দেখিয়ে এই যুবতী ভাইরাল হয়ে গিয়েছেন। “ইন্টেরিয়র ইন্টেরিয়র” আমাকে একটি ফেসবুক পেজ থেকে পোস্ট করা হয়েছে এই বেলি ডান্সের ভিডিওটি।

এখনো পর্যন্ত প্রায় সাড়ে আট লক্ষেরও বেশি মানুষ ভিডিওটি দেখে নিয়েছেন। ৯২ হাজার লাইক পড়েছে ভিডিওটিতে। কমেন্ট রয়েছে প্রায় দেড় হাজার।