“যে ঘোড়া ছিলাম, সেই ঘোড়াই আছি”, সু’স্থ হয়ে বাড়ি ফিরতেই বললেন অনুব্রত

বেশ কিছুদিন অসু’স্থ থাকার পর অবশেষে বুধবার বাড়ি ফিরলেন বীরভূম জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল। শুধু বাড়ি ফেরায় নয়,

এবার থেকে খুব তাড়াতাড়ি কাজে যোগ দিতে চলেছেন বলেও জানিয়ে দিলেন অনুব্রত। একমাস আগেই শেষ হয়েছে বিধানসভা নির্বাচন। রাজ্যজুড়ে তৃণমূলের জয় জয়াকার।

তৃতীয়বারের জন্য মুখ্যমন্ত্রী পদে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় প্রত্যাবর্তন করার সঙ্গে সঙ্গে বীরভূমে তৃণমূলের ফলাফল খুবই ভালো। এর কৃতিত্ব অবশ্যই বর্তায় অনুব্রত মণ্ডলের উপরে। কিন্তু দিন কয়েক আগে হঠাৎ করেই অ’সু’স্থ হয়ে পড়েন অনুব্রত।

পরিবারের সূত্রে জানা যায়, দুই দিন ধরে জ্ব’-রে ভুগছিলেন অনুব্রত মণ্ডল। বৃহস্পতিবার দুপুরে তাঁর শ্বা’সক’ষ্ট শুরু হয়। এই পরিস্থিতিতে বোলপুরের চিকিৎসকরা অনুব্রতকে কলকাতায় রেফার করেন।

কলকাতায় যাওয়ার পথে এই দিন তাঁর সঙ্গে ছিলেন তার মেয়ে। ক’-রো’না পরিস্থিতি হোক বা ভোটের ময়দানে, বরাবরই পথে নেমে কাজ করেছেন অনুব্রত মণ্ডল।

সেই কারণেই কি তিনি ক’-রো’না আ’ক্রা’ন্ত হলেন? এমন প্রশ্ন উঠেছিল। কলকাতার ওই হাসপাতালে তিনি প্রায়ই যান শ’রীর চে’কআ’প করাতে। হাই সু’গার, প্রে”শারও রয়েছে তাঁর। এছাড়াও রয়েছে আরও বেশ কিছু শা’রী’রিক সমস্যা।

ক’-রো’-না আ’ক্রা’ন্ত হননি অনুব্রত। এদিন অনুব্রত মণ্ডল জানান, “আমার ক’-রো’-না হয়নি। তবে কলকাতা গিয়ে পুরো শ’রীরের চেক আপ হয়ে গেল। ভো’টে অনেক খা’টাখা’টনি হয়েছিল, ভাল হল এই চেক আপ করে।

আমি যে দৌড়াতাম অর্থাৎ যে ঘো’ড়া ছিলাম সেই ঘো’ড়াই আমি আছি। খুব তাড়াতাড়ি আমি আবার কাজ শুরু করব।” অনুব্রত মণ্ডল বাড়ি ফিরতেই স্ব’স্তির নিঃ’শ্বা’স ফেলছেন বীরভূমের তৃণমূল কংগ্রেস নেতৃত্ব।