অতি সাধারণ মানুষের মতো লুঙ্গি পরে বাড়ির সকলের সঙ্গে আড্ডা দিচ্ছেন অরিজিৎ সিং, ঝড়ের গতিতে ভাইরাল ভিডিও

মানুষের জীবনে সংগীত এক অপূরণীয় অংশ। সংগীতের মূর্ছনায় যেকোনো মানুষের মন ভালো হয়ে যায়। মানুষের জীবনের যেকোনো সময়ই সঙ্গীত অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। মনের দুঃখে, আনন্দে সর্বক্ষেত্রেই মানুষের সবচেয়ে বড় সঙ্গী সঙ্গীত।

নিজের মনের ভাব প্রকাশ করার জন্য সঙ্গীত একমাত্র মাধ্যম। ভারতবাসী বরাবরই সঙ্গীতপ্রিয়। তাইতো বলিউডের সব সময় রাজ করেছেন সঙ্গীতের জগতের গায়ক গায়িকারা। মোনালি ঠাকুর, শ্রেয়া ঘোষাল, নেহা কক্কর প্রভৃতি সংগীতশিল্পীরা বারবার মাতিয়ে দিয়েছে মানুষের মন।

কিন্তু বর্তমানে সংগীতজগতের একছত্র অধিপতি হলেন অরিজিত সিং। ছোট থেকে বয়স্ক সবাই তার সুরেলা গলায় মুগ্ধ। তার গলায় যেন রয়েছে এক না বলা বেদনা, তা যেন প্রতিটি মানুষের হৃদয় ছুঁয়ে যায়। মুর্শিদাবাদের জিয়াগঞ্জের ছোট্ট অরিজিতের যাত্রা রিয়েলিটি শো থেকে, সেখান থেকেই তিনি বলিউডের সুরসম্রাট।

কিন্তু অরিজিত সিং শুধু একজন ভালো গায়ক নন তিনি একজন ভালো মানুষ ও। তার অসাধারণ ব্যক্তিত্ব সারা ভারতবর্ষে অত্যন্ত জনপ্রিয়। একটি ভাইরাল ভিডিওতে দেখা গেছিল, তিনি একটি কনসার্টে গান গাইছিলেন।

দর্শকরা তার গানে আবেগ উদ্বেলিত হয়ে উঠেছিল, হঠাৎই এক দর্শক আবেগের বসে অরিজিৎ সিং এর দিকে টাকা ছুড়তে থাকে। অরিজিৎ সিং তৎক্ষণাৎ গান থামিয়ে টাকাগুলি অত্যন্ত যত্নসহকারে স্টেজ থেকে তুলে নেন এবং সেই দর্শককে ফিরিয়ে দেন।

তিনি সেই দর্শককে বলেন তিনি যেন এই ভাবে তার নিজের টাকা ছড়িয়ে নষ্ট না করে। এইভাবে তিনি বোঝাতে চাইলেন টাকার মূল্য। এত বড় সেলিব্রিটি হয়েও অরিজিৎ সিং খুব সাধারণ ভাবে থাকতেই পছন্দ করেন।

কিছুদিন আগে ভাইরাল একটি ভিডিওতে দেখা গেছিল, অরিজিৎ সিং মাথায় গামছা বেঁধে মুখে মাস্ক পরে একদম সাধারন ভাবে গ্রামের রাস্তা দিয়ে হাটছেন। তাকে দেখে মনেই হচ্ছে না তিনি একজন এত বড় মানুষ।

সাধারণত সেলিব্রিটিরা সাধারণ মানুষের মধ্যে যেতে চান না, অরিজিৎ সিং সাধারণভাবে সাধারণ পোশাকে এক গ্রামের রাস্তা দিয়ে হেঁটে চলেছেন। তার এই মহানুভবতা মুগ্ধ করে দিয়েছিল মানুষকে।

সম্প্রতি একটি ভাইরাল ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, তিনি সম্ভবত মুর্শিদাবাদে তার নিজের দেশের বাড়িতে রয়েছেন। তাকে ঘিরে রয়েছে বাচ্চারা। কিন্তু অবাক কাণ্ড এটাই, একদম বাড়ির ছেলের মতোই তিনি সকলের সাথে কথা বলছেন।

একদম সাধারণ পোশাকে খুনসুটি করছেন তিনি বাচ্চাদের সাথে। এর মধ্যেই একটি বাচ্চা তার কোলে ওঠে ছবি তুলতে শুরু করে। সবমিলিয়ে মিষ্টি ভিডিওটি সকলের মন কেড়ে নিয়েছে। এত বড় সেলিব্রিটি হয়েও তার ব্যাবহার মন কেড়েছে সকলের।

ভিডিওটি পোস্ট করার সাথে সাথেই হয়ে গেছে ভাইরাল। বিশেষ করে অরিজিতের মত মানুষকে এই অবস্থায় দেখে অবাক এবং মুগ্ধ হয়ে গেছেন সবাই। হাজার হাজার মানুষ ভিডিওটি লাইক করেছে। এত বড় একজন মানুষ হয়েও তার এই সাধারণ বেশ মুগ্ধ করে দিয়েছে সকলকে।

প্রতিবারই অরিজিত নানাভাবে আমাদের চমকে দিয়েছেন বারবার। কিছুমাস আগেই তিনি মুর্শিদাবাদের জেলা স্বাস্থ্য দপ্তরে পাঁচটি হাই ফ্লো নেজাল অক্সিজেন থেরাপি মেশিন দিয়ে সাহায্য করেছিলেন।

সাফল্যের শীর্ষে রয়েছেন তিনি সকলের ভালোবাসাতে। প্রায় ছয়বার ফিল্মফেয়ার অ্যাওয়ার্ড জিতেছেন তিনি। তিনি যেন তাঁর জীবন এভাবেই এগিয়ে যান এই আশাই করি আমরা।