এটাই ভারতবর্ষ! অযোধ্যায় তৈরি হওয়া মসজিদের জন্য সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিলেন এক হিন্দু ভাই

জাতি ধর্ম আলাদা হলেও, একটা জায়গায় সবকিছু গিয়ে মিলিত হয় এবং সেটা হলো মানুষের মানসিকতা বোধে। এবং এই বোধটা যদি সকলের সমান হয় তাহলে হয়তো দেশে যে ধর্ম জাতি নিয়ে লড়াই সবকিছুই মিলিয়ে যাবে মনুষ্যত্বের আড়ালে।

কোন কিছু নতুনভাবে তৈরি করতে অবশ্যই অনেক মানুষের সাহায্য দরকার হয়। সেটা যতই মন্দির তৈরি হোক মসজিদ তৈরি হোক বা অন্য কিছু। অযোধ্যায় যখন রাম মন্দির তৈরি হওয়ার প্রচেষ্টা শুরু হয় সেই সময়ে মন্দির তৈরীর জন্য অনেক মুসলিম তাদের সামর্থ্য অনুযায়ী সাহায্য করেন।

রামের জন্ম ভূমিতে রামের মন্দির তৈরীর জন্য যতটা সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে হিন্দু সম্প্রদায় ততটাই মুসলিম সম্প্রদায়ের মানুষেরা এগিয়ে এসেছে সাহায্য করার জন্য। এবং সকলের প্রচেষ্টায় আজ রাম মন্দির তৈরি হয়েছে।

এইবার ঘটনাটি ঠিক বিপরীতমুখী, রামের জন্মস্থানে এইবার তৈরি নতুন মসজিদের জন্য সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিলেন এক হিন্দু।

লকনো বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মরত এক হিন্দু ব্যক্তির রোহিত শ্রীবাস্তব তিনি অযোধ্যায় নতুন একটি মসজিদ তৈরির জন্য ২১ হাজার টাকার সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন,। তিনি বলেন ভারতে হিন্দু এবং মুসলিম সংস্কৃতির একটি ছবি ধরা পড়েছে। তিনি বলেন তার কাছে ধর্মের কোন বিভেদ নেই।

তিনি জানান তার মুসলিম বন্ধু আছে এবং যাদের সাথে তিনি হোলি এবং অন্যান্য অনেক উৎসব উপভোগ করে থাকে, অপরদিকে ঈদের মতো উৎসবেও তার বন্ধুদের সঙ্গে আনন্দ করে থাকে।

তার প্রত্যেকটা হিন্দু মানুষের প্রতি আবেদন তারাও যেন তাদের সামর্থ্য অনুযায়ী সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেন। এমন একটি সংস্কৃতি গড়ে উঠুক যেখানে সব ধর্ম এক হয়ে মিলিত হয়ে যায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here